সর্বশেষ আপডেট : June 6, 2022 তারিখে 9:47 pm
আজ : ৩০শে জুন, ২০২২ ইং | ১৭ই আষাঢ়, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ

Google My Business কি এবং কেন দরকার এটি?

মেহেদী আকরাম | November 16, 2020, 2:44 PM

বর্তমান সময়ে যে কোন ই কমার্স বা অন্যান্য বিজনসের জন্য ডিজিটাল প্লাটফর্ম ছাড়া চিন্তা করা অসম্ভব একটি ব্যাপার। এজন্য, GOOGLE MY BUSINESS – লোকাল বিজনেস এবং লোকাল এসইও এর গুরুত্বপূর্ণ একটি পার্ট। কোন বিজনেসের ডিজিটাল উপিস্থিতি বা ডিজিটাল মার্কেটিং এর জন্য যেসব কাজ করা হয় তার বেশিরভাগ অংশ দখল করে থাকে GOOGLE MY BUSINESS। এটি খুব গুরুত্বপূর্ণ সার্ভিস, বিজনেসকে কাস্টমারদের সাথে কানেক্ট করার জন্য। লোকাল এসইও বা যে কোন ধরনের বিজনেস ব্র‍্যান্ডিং এবং মার্কেটিং এর জন্য এটি অন্যতম মাধ্যম হিসেবে কাজ করে।

GOOGLE MY BUSINESS কি?
GOOGLE MY BUSINESS এমন একটি সার্ভিস যা গুগলের মাধ্যমে আপনার বিজনেস বা প্রতিষ্ঠান বা সংস্থার অনলাইন Property / Identity নিশ্চিত করে। এর ফলে আপনার বিজনেস গুগল সার্চ রেজাল্ট পেজে, গুগল সাজেস্ট অফশনে এবং গুগল ম্যাপে সহজে খুঁজে পাওয়া যায়। আপনার বিজনেসের নাম লিখে গুগলে সার্চ করলে কম্পিউটারের ডান পাশে এবং মোবাইলে উপরের দিকে একটা বক্সের মধ্যে বিজনেস লোকেশন, ফটো, এড্রেস সহ বিভিন্ন তথ্য দেখা যায়। আবার আপনার কোন সর্ভিস বা ক্যাটাগরি লিখে সার্চ করলে সার্চ রেজাল্টে ম্যাপ সহ বিজনেস এর নাম ও আরো কিছু তথ্য দেখায়। GOOGLE MY BUSINESS পেজ তৈরি এবং কাস্টোমাইজ করার ফলে এই তথ্যগুলি প্রদর্শন করে।
GOOGLE MY BUSINESS সম্পর্কে কিছু তথ্য,
৮০ শতাংশ মানুষ লোকাল বিজনেস ইনফরমেশনের জন্য গুগলে সার্চ করে।
Google My Business এর মাধ্যমে বিজনেস সংক্রান্ত বিভিন্ন গুরুত্বপূর্ণ তথ্য গুগলে প্রদর্শিত হয়।
সরাসরি Google My Business পেজের মাধ্যমে বিভিন্ন পোস্ট, অফার বা ইভেন্ট শেয়ার করা যায়। এই পোস্টে বাই বাটন, বুক বাটন বা ওয়েবসাইট এর লিংক বাটন এ্যাড করা যায়।
GOOGLE MY BUSINESS থেকে বিনামুল্যে সাব-ডোমেইনে ওয়েবাসাইট বানাতে পারেন আপনার বিজনেসের জন্য অথবা আপনার ওয়েবসাইটও অ্যাড করতে পারবেন।
Google Adwords সরাসরি ম্যানেজ করা যায় এবং প্রয়োজন অনুসারে ক্যাম্পেইন রান করা যায়।
GOOGLE MY BUSINESS থেকে সহজেই Insight রিপোর্ট পাওয়া যায়।

কেন ব্যাবহার করবেন GOOGLE MY BUSINESS?
১. GOOGLE MY BUSINESS পেইজের মাধ্যমে গুগল ম্যাপে আপনার বিজনেস লোকেশন দেখা যাবে ।
২. GOOGLE MY BUSINESS এর মাধ্যমে আপনি আপনার বিজনেসের বিভিন্ন গুরুত্বপূর্ণ তথ্যগুলো একনজরে সবাইকে দেখাতে পারবেন। যেমন- বিজনেস নাম, প্রডাক্ট/সার্ভিস, অ্যাড্রেস, কন্টাক্ট ইনফোর্মেশন, ম্যাপ, বিজনেস আওয়ার, ওয়েবসাইট ইত্যাদি।
৩. ক্লায়েন্ট খুব সহজেই আপনার বিজনেস সম্পর্কে ইনফরমেশন পায় এবং প্রয়োজনে যোগাযোগ করতে পারে।
৪. GOOGLE MY BUSINESS এর মাধ্যমে কাস্টমার ইন্টারঅ্যাকশন করা যায়। যেমন, ম্যাসেজিং
৫. আপনার প্রডাক্ট/সার্ভিস সম্পর্কে রিভিউ যা আপনার প্রতি মানুষের মনে বিশ্বাস যোগ্যতা বৃদ্ধি করবে।
৬. GOOGLE MY BUSINESS আপনার বিজনেসকে প্রমোট করবে; যেমন- ব্র্যান্ডিং, রিভিউ ও লোকাল এসইও।
GOOGLE MY BUSINESS এর জন্য কারা আবেদন করতে পারবে,

  • যে কোন ধরনের প্রতিষ্ঠান, সংস্থা বা সংগঠন।
  • ফিজিক্যাল অ্যাড্রেস আছে এমন যে কোন ব্যবসা প্রতিষ্ঠান; যেমন, ছোট-বড় দোকান, রেস্টোরেন্ট, ইত্যাদি।
    তবে আর দেরি কেন? আসুন আপনার বিজনেসকে গুগলের কাছে লিপিবদ্ধ করে নিয় যেন কাস্টোমার চাইলেই গুগল সার্চ বা গুগল ম্যাপে আপনার বিজনেসকে খুঁজে পায়।

১টি মন্তব্য

  1. যেকোনো ধরনের বিজনেসের পরিধি বিস্তারের জন্যই গুগল মাই বিজনেস একটি খুবই ভালো সুযোগ। কিন্তু লোকাল বিজনেসের জন্য এটি আরও বেশি কার্য করি। আর অবাক করা বিষয় হলো গুগলের মাই বিজনেস হলো টুটালি একটি ফ্রি টুল।

মন্তব্য করুন