সর্বশেষ আপডেট : June 6, 2022 তারিখে 9:47 pm
আজ : ৬ই অক্টোবর, ২০২২ ইং | ২১শে আশ্বিন, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ

দালাল ছাড়াই করুন ই-পাসপোর্ট

মেহেদী আকরাম | January 26, 2020, 8:05 PM

অনলাইনে www.epassport.gov.bd ফর্মটি নির্ভুলভাবে পূরন করে ব্যাংকে অথবা অনলাইনে টাকা জমা দিয়ে দিন (আমি অনলাইনে টাকা দিয়েছি), ফর্মে যেই টাকা দেখাবে সেটিই দিন। এক্সট্রা/ফাইন দিতে হবেনা রি-ইস্যুতে।
আমার জানুয়ারি ২০১৭ পাসপোর্টের মেয়াদ শেষে হয়েছিল। ২১ জানুয়ারি ২০২০ অনলাইনে আবেদন করে টাকা জমা দিয়েছি আর আজ ২৬ জানুয়ারি ২০২০ ই-পাসপোর্ট রি-ইস্যুতে দিলাম কোন এক্সট্রা ফি ছাড়াই।
• কিন্তু MRP রিনিউ করালে প্রতি বছরের জন্য ৩৪৫ টাকা ফাইন দিতে হবে।

যা যা নিবেন
• আপনার মেইলে আসা ফর্মের প্রিন্ট কপি ১ কপি।
• NID কার্ডের ফটোকপি (অরিজিনালটি সাথে রাখতে হবে)। ২০+ বয়স যাদের তাদের জন্য বাধ্যতামূলক। বয়স ২০ এর নিচে হলে জন্ম নিবন্ধন এর কপিসহ পিতা মাতার NID এর ফটোকপি নিবেন।
• রি-ইস্যুর ক্ষেত্রে পুরাতন পাসপোর্ট এর ফটোকপি (অরিজিনালটি সাথে রাখতে হবে)।
• নতুনদের ক্ষেত্রে বর্তমান এবং স্থায়ী ঠিকানার বিদ্যুৎ বিলের কপি।
• ছবি, আইরিশ, ফিংগার নিবে, তাই সাদা পোশাক পড়ে আসবেন না।
• যারা হাতে পূরন করা ফর্ম নিয়ে যাবেন তাদের ভোগান্তি বেশি হবে।
• রি-ইস্যুর ক্ষেত্রে ছবি লাগবে না, তবে ছবি সংগে রাখতে পারেন।
• গাম, স্পাপলার সাথে রাখতে পারেন। • পুরাতন NID থাকলে ফটোকপি সহ সাথে রাখতে পারেন।

প্রথমে ৪০১ নম্বর রুমে গিয়ে (আগারগাঁও) সিরিয়াল নিয়ে ক্লিয়ারেন্স নিন।
এবার ৪০৩ থেকে ছবি তোলার ও অন্যান্য ফরমালিটিজ শেষ করে চলে আসুন ডেলিভারি রিসিট নিয়ে।

• পাসপোর্টের মেয়াদ ৬ মাসের বেশি থাকলে কিছুদিন অপেক্ষা করেন। কারন বিশেষ ইস্যু ছাড়া এসব পাসপোর্ট রিনিউ করাতে নিরুৎসাহিত করা হচ্ছে এবং বেশিরভাগ সময় তাদের ফেরত দেয়া হচ্ছে।
• পাসপোর্টের ফর্মে মেজর কোন ভুল হয়ে গেলে এবং টাকা জমা দেয়া হয়ে গেলে ২১ দিন অপেক্ষা করুন, এরপর আপনার সব তথ্য ডিলেট হয়ে গেলে আবার এপ্লাই করুন। আর টাকা জমা দিতে হবেনা। একবার দিলেই হবে।

২১টি মন্তব্য

Leave a Reply to abdulhakimmondal Cancel reply